রবিউস সানী ১৪৪১ || ডিসেম্বর ২০১৯

আযীযুর রহমান - আশুলিয়া, সাভার

৪৯৫৬. প্রশ্ন

কিছুদিন আগে যোহরের সুন্নত আদায়কালে দ্বিতীয় রাকাতে অসতর্কতাবশত ভুলে আমার মুখ থেকে উচ্চস্বরে কিছু কথা বের হয়ে যায়। ভুলে বলে ফেলার কারণে কি আমার নামায নষ্ট হয়ে গিয়েছে?

 

উত্তর

হাঁ, আপনার ঐ নামায নষ্ট হয়ে গিয়েছে। কেননা অনিচ্ছাকৃত বা ভুলে কথা বললেও নামায নষ্ট হয়ে যায়। হাদীস শরীফে এসেছে, রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম ইরশাদ করেন-

إِنّ هَذِهِ الصّلَاةَ لَا يَصْلُحُ فِيهَا شَيْءٌ مِنْ كَلَامِ النّاسِ، إِنّمَا هُوَ التّسْبِيحُ وَالتّكْبِيرُ وَقِرَاءَةُ الْقُرْآنِ.

মনে রেখ, নামাযে কথাবার্তা বলা ঠিক নয়। এ তো হল- তাসবীহ, তাকবীর ও কুরআন তিলাওয়াতের সমষ্টি। (সহীহ মুসলিম, হাদীস ৫৩৭)

ইবরাহীম নাখায়ী রাহ. বলেন-

إذَا تَكَلّمَ فِي الصّلاَة أَعَادَ الصّلاَة، وَلَمْ يُعِدَ الْوُضُوءَ.

নামাযে কথাবার্তা বললে তা আবার পড়তে হবে। তবে পুনরায় অযু করা লাগবে না। (মুসান্নাফে ইবনে আবী শাইবা, বর্ণনা ৮১৯৬)

-আলমাবসূত, সারাখসী ২/১১৩; আলমুহীতুল বুরহানী ২/১৪৬; শরহুল মুনয়া পৃ. ৪৩৪; আলবাহরুর রায়েক ২/৩; ফাতাওয়া হিন্দিয়া ১/৯৮; ফাতাওয়া খানিয়া ১/১৩৬

এই সংখ্যার অন্যান্য প্রশ্ন-উত্তর পড়ুন