সফর ১৪৪১ || অক্টোবর ২০১৯

আবদুল্লাহ - গাজীপুর

৪৯০২. প্রশ্ন

গ্রামে আমাদের একটি জমি অনেক বছর ধরে এক ব্যক্তি অন্যায়ভাবে ভোগ করে আসছিল। আইনের আশ্রয় নেওয়ার পর কিছুদিন আগে আমাদের পক্ষে রায় আসে। জমিটিতে আমরা ভবন নির্মাণ করে বসবাস করতে চাচ্ছি, কিন্তু তাতে তাদের একটি কবর আছে, যার বয়স প্রায় আট মাস। কবর  স্থানান্তর করা না করা নিয়ে গ্রামে সালিশ বসে। তাতে এই সিদ্ধান্ত হয় যে, যেহেতু এটা দ্বীনী  বিষয়, তাই এ বিষয়ে শরীয়তের বিধান যেমন হবে তা উভয় পক্ষ মেনে নিবে। এখন মুফতী সাহেবের কাছে জানতে চাচ্ছি যে, এক্ষেত্রে শরীয়তের সঠিক মাসআলাটি কী?

উত্তর

প্রশ্নোক্ত বর্ণনা মতে কবরটি যেহেতু অন্যের জমিতে তার অনুমতি ছাড়া দেওয়া হয়েছে, তাই সেটি স্থানান্তর করা জায়েয হবে। ঐ লোকদের কর্তব্য, কবরটি স্থানান্তর করে জমি-মালিকের বসবাসের সুযোগ করে দেওয়া।

-আলমুহীতুল বুরহানী ৩/৯৯; আততাজনীস ওয়াল মাযীদ ২/২৭৯; শরহুল মুনয়া পৃ. ৬০৫; খুলাসাতুল ফাতাওয়া ১/২২৬; হালবাতুল মুজাল্লী ২/৬২৯

এই সংখ্যার অন্যান্য প্রশ্ন-উত্তর পড়ুন

advertisement
advertisement