সফর ১৪৪১ || অক্টোবর ২০১৯

মুহাম্মাদ তাকী - সিলেট

৪৮৯১. প্রশ্ন

একবার ভাইয়া-ভাবীর প্রচ- ঝগড়া হয়। ঝগড়ার একপর্যায়ে ভাইয়া তাকে উদ্দেশ্য করে বলে, ‘তুমি তালাক, চুপ করো বলছি!’ একথা শুনে অবাক হয়ে আম্মা বললেন, বাবা, তুই কী বললি!? ভাইয়া বলে, বলেছি, ‘ও তালাক’ এরপর আব্বা, ভাইয়ার শ্বশুর এবং অন্যান্যরা ফোন করে আম্মার মতো প্রশ্ন করতে থাকলে ভাইয়া আগের মতই উত্তর দিয়ে যান। জানার বিষয় হল, তালাক দেওয়ার পর বিভিন্নজনের জানতে চাওয়ার প্রেক্ষিতে এভাবে একের পর এক তালাক শব্দ যে উচ্চারণ করা হল, এর দ্বারা আসলে কয় তালাক হয়েছে?

উত্তর

প্রশ্নোক্ত ক্ষেত্রে কেবল এক তালাকে রাজয়ী হয়েছে। প্রথমবার তালাক  দেওয়ার পর অন্যদের প্রশ্নের জবাবে ঘটনার বর্ণনা দিতে গিয়ে যে তালাক শব্দ উচ্চারণ করা হয়েছে তা দ্বারা নতুন করে কোনো তালাক হয়নি। সুতরাং এখন ইদ্দতের ভেতরেই আপনার ভাই যদি তাকে আবার স্ত্রী হিসাবে গ্রহণ করে নেয় তবে সে তার স্ত্রী হয়ে যাবে। নতুন করে বিবাহ করা লাগবে না। কিন্তু ইদ্দতের ভিতরে যদি স্ত্রী হিসাবে গ্রহণ না করে বা স্বামী-স্ত্রীসুলভ কোনো আচরণও যদি না হয়, তবে তালাকটি বায়েন হয়ে যাবে। সেক্ষেত্রে উভয়ে একত্রিত হতে চাইলে নতুন মহর ধার্য করত সাক্ষীদের সামনে পুনরায় বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হতে হবে।

-আলমুহীতুল বুরহানী ৪/৩৯৩; বাদায়েউস সানায়ে ৩/১৬৩; ফাতাওয়া খানিয়া ১/৪৫৩; ফাতাওয়া হিন্দিয়া ১/৩৮৮; রদ্দুল মুহতার ৩/২৯৩

এই সংখ্যার অন্যান্য প্রশ্ন-উত্তর পড়ুন

advertisement
advertisement