মুহাররম ১৪৪১ || সেপ্টেম্বর ২০১৯

আমীমুল ইহসান - ঝিনাইদহ

৪৮৬৯. প্রশ্ন

আমি একটি পাঞ্জেগানা মসজিদে নামাযের ইমামতি করি। কিছুদিন আগে একটি ইসলামী গবেষণা প্রতিষ্ঠানের প্রকাশিত সাময়িকীতে দেখলাম ‘সুন্নাহসম্মত নামায’ শিরোনামে একটি প্রবন্ধ লিখেছেন এক নিবন্ধকার। সেখানে বলা হয়েছে, নামাযের শেষে যে সালাম ফেরানো হয় তার একটি সুন্নত হল, সালামের শব্দগুলো ‘মদ’ না করে (দীর্ঘক্ষণ না টেনে) সংক্ষেপে স্বাভাবিকভাবে উচ্চারণ করা। সালাম বিষয়ে এ কথাটি এর আগে কোথাও পড়িনি বা শুনিনি। তাই আপনার কাছে জানতে চাচ্ছি, এ নিবন্ধে যা লেখা হয়েছে তা কি ঠিক? নামাযের শেষে সালামের শব্দ উচ্চারণের সুন্নাহসম্মত তরীকা কি এটাই? জানালে অনেক উপকৃত হব।

উত্তর

হাঁ, নামাযের সালামের ক্ষেত্রে সুন্নাহসম্মত পদ্ধতি হল, সালামের শব্দগুলো অতিরিক্ত মদ না করে স্বাভাবিকভাবে উচ্চারণ করা।

عَنْ أَبِي هُرَيْرَةَ، قَالَ: حَذْفُ السّلَامِ سُنّةٌ. قَالَ عَلِيّ بْنُ حُجْرٍ: وَقَالَ ابْنُ المُبَارَكِ: يَعْنِي: أَنْ لَا تَمُدّهُ مَدّا.

আবু হুরায়রা রা. থেকে বর্ণিত, তিনি বলেছেন, সালাম ‘হাযফ’ করা সুন্নত। ইবনুল মুবারক রাহ. বলেন, ‘হাযফ’ অর্থ, সালামকে বেশি ‘মদ’ না করা (অর্থাৎ বেশি না টানা)। (জামে তিরমিযী, হাদীস ২৯৭)

-আননিহায়া ফী গরীবিল হাদীস ১/৩৫৬; হালবাতুল মুজাল্লী ২/২২০; মাআরিফুস সুনান ৩/১১৫; ইলাউস সুনান ৩/১৭৯

এই সংখ্যার অন্যান্য প্রশ্ন-উত্তর পড়ুন

advertisement
advertisement