যিলক্বদ ১৪৩৮ || আগস্ট ২০১৭

উম্মে সায়েমা - মিরপুর, ঢাকা

৪১৫৫. প্রশ্ন

হুযুর! আমার মেয়ে নার্সারীতে পড়ে। ওদের অঙ্কনের ক্লাস হয়। এ ক্লাসে শিক্ষকরা ওদেরকে দিয়ে বিভিন্ন প্রাণীর ছবি আঁকায় ও রং করায়। আমি জানতে চাচ্ছি- প্রাণীর ছবি আঁকা কি জায়েয আছে? আমি মা হিসেবে এক্ষেত্রে আমার কর্তব্য কী? দয়া করে জানালে উপকৃত হব।
 

উত্তর

প্রাণীর ছবি অঙ্কন করা হারাম। এটি অনেক বড় গুনাহ। এ ব্যাপারে হাদীস শরীফে কঠোর হুঁশিয়ারি এসেছে। হযরত আব্দুল্লাহ ইবনে মাসউদ রা. থেকে বর্ণিত, নবী কারীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম ইরশাদ করেছেন-

إِنّ أَشَدّ النّاسِ عَذَابًا عِنْدَ اللّهِ يَوْمَ القِيَامَةِ المُصَوِّرُونَ

কিয়ামতের দিন ছবি অঙ্কনকারীরা আল্লাহর নিকট সবচেয়ে বেশি শাস্তির সম্মুখীন হবে। -সহীহ বুখারী, হাদীস ৫৯৫০; সহীহ মুসলিম, হাদীস ২১০

অন্য হাদীসে হযরত আব্দুল্লাহ ইবনে ওমর রা. থেকে বর্ণিত রয়েছে, রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম ইরশাদ করেছেন-

إِنّ الّذِينَ يَصْنَعُونَ هَذِهِ الصّوَرَ يُعَذّبُونَ يَوْمَ القِيَامَةِ، يُقَالُ لَهُمْ: أَحْيُوا مَا خَلَقْتُمْ.

নিশ্চয়ই যারা এসকল ছবি আঁকে তাদেরকে কিয়ামতের দিন শাস্তি দেয়া হবে এবং বলা হবে- তোমরা তোমাদের সৃজিত বস্তুতে (পারলে) প্রাণ সঞ্চার কর। -সহীহ বুখারী, হাদীস ৫৯৫১; সহীহ মুসলিম, হাদীস ২১০৮

তাই শিক্ষক ও অভিভাবকদের কর্তব্য কোমলমতি শিশুদেরকে দিয়ে প্রাণীর ছবি অঙ্কন না করানো। তবে প্রাণী ছাড়া অন্য জড় বস্তুর ছবি আঁকতে পারে। এতে কোনো বাধা নেই। যেমন- গাছপালা, ফল-ফুল ইত্যাদি।

-ফাতহুল বারী ১০/৩৯৭; উমদাতুল কারী ২২/৭০; আলবাহরুর রায়েক ২/২৭

এই সংখ্যার অন্যান্য প্রশ্ন-উত্তর পড়ুন

advertisement
advertisement