সফর ১৪৪১ || অক্টোবর ২০১৯

মসজিদ কর্তৃপক্ষ - চাপাইনবাবগঞ্জ

৪৯০৩. প্রশ্ন

কবরের উপর ভবন নির্মাণ প্রসঙ্গে :

জনাব, ২২ বছর আগে আমাদের গ্রামের এক মুরব্বী মসজিদের নামে ৫ শতাংশ জায়গা ওয়াকফ করেন। ওয়াকফকৃত  জায়গাটির সীমানার মধ্যে ডান পাশে পুরাতন একটি কবর ছিল। আমাদের জানামতে এটি ওয়াকফকারীর দাদার কবর। সে সময় আবাদী কম থাকায় মসজিদটি নির্মাণকালে আমরা কবরের দিক থেকে প্রায় দুই শতাংশ জায়গা ছেড়ে তা নির্মাণ করি। এখন মানুষের সংখ্যা অনেক বেড়েছে। আমরা চাচ্ছি মসজিদটি বড় করে পূর্ণ জায়গার উপর নির্মাণ করতে। এক্ষেত্রে কী আমাদের জন্য কবরের জায়গাটি ব্যবহারের সুযোগ রয়েছে?

উল্লেখ্য, উক্ত জায়গাটি মুরব্বীর মালিকানাধীন সম্পদ ছিল। কবরস্থান বানানোর জন্য ওয়াকফকৃত ছিল না। তৎকালীন গ্রামের প্রচলন অনুযায়ী মৃত ব্যক্তিটিকে (মুরব্বীর দাদা) কবরস্থানে দাফন না করে উক্ত জায়গায় দাফন করা হয়েছে।

উত্তর

প্রশ্নের বিবরণ অনুযায়ী যেহেতু উক্ত  জায়গাটি মসজিদের জন্যই ওয়াকফকৃত এবং কবরটিও অনেক পুরনো হয়ে গিয়েছে। আর বর্তমানে মসজিদ সম্প্রসারণও খুব জরুরি। সুতরাং কবরটিকে সমান করে দিয়ে সেখানে মসজিদ সম্প্রসারণ করতে পারবেন। এক্ষেত্রে সেখানে কবরের কোনো চিহ্ন রাখা যাবে না।

-তাবয়ীনুল হাকায়েক ১/৫৮৯; ফাতাওয়া হিন্দিয়া ১/১৬৭; রামযুল হাকায়েক ১/৬৭;  আলবাহরুর রায়েক ২/১৯৫; আদ্দুররুল মুখতার ২/৩৩৮

এই সংখ্যার অন্যান্য প্রশ্ন-উত্তর পড়ুন

advertisement
advertisement