জুমাদাল আখিরাহ-রজব ১৪৪০ || মার্চ ২০১৯

মুহাম্মাদ মুজীবুর রহমান - বাংলাবাজার, ঢাকা

৪৭৪৮. প্রশ্ন

আমার একটি লাইব্রেরী আছে। অনেক সময় কোনো বইয়ের পূর্বের সংস্করণ শেষ হয়ে যায় বা পূর্বের কোনো বই নতুন করে ছাপা হয়। ফলে তখন অনেক টাকার প্রয়োজন হয়। আবার বই কতটুক বিক্রি হবে সে ব্যাপারেও ঝুঁকি থাকে। অগ্রিম বেশ কিছু কপি বিক্রয় হয়ে গেলে এ ঝুঁকি কিছুটা কমে যায়। এজাতীয় ক্ষেত্রে অনেক লাইব্রেরী কম মূল্যে অগ্রিম বই বিক্রয় করে দেয়। ৩০-৩৫% পর্যন্তও ছাড় দিয়ে থাকে তারা। গ্রাহকগণও এর প্রতি আগ্রহী থাকে। তাই হুজুরের কাছে জানতে চাই, এভাবে অগ্রিম বেচা-কেনা করতে কোনো সমস্যা আছে কি না? এবং শরীয়তের দৃষ্টিতে এক্ষেত্রে কী কী বিষয় লক্ষণীয়?

উত্তর

বই ছাপানোর পূর্বে তার অগ্রিম ক্রয়-বিক্রয় কিছু শর্তসাপেক্ষে জায়েয। তা হল-

১. বই সুনির্ধারিত হতে হবে।

২. কাগজ, ছাপা ও বাঁধাই ইত্যাদির গুণগত মান উল্লেখ থাকতে হবে।

৩. বই দেওয়ার সময় ও স্থান নির্ধারণ করে নিতে হবে। আর লেনদেনের সময় তা উভয়পক্ষের দস্তখতসহ দু’জন সাক্ষীর সামনে একটি লিখিত চুক্তি করে নিবে। এক্ষেত্রে অগ্রিম মূল্য নেয়ার কারণে মূল্য কিছুটা কমও হতে পারে।

-আলমুহীতুল বুরহানী ১০/৩৬৩; বাদায়েউস সনায়ে ৪/৪৪৪; ফাতাওয়া হিন্দিয়া ৩/২০৭; মাজাল্লাতুল আহকামিল আদলিয়্যা, মাদ্দা : ৩৯০, ৩৯২

এই সংখ্যার অন্যান্য প্রশ্ন-উত্তর পড়ুন

advertisement
advertisement